ADs by Techtunes ADs
ADs by Techtunes ADs

TikTok এর মধ্যে ফেস ডিটেকশন এবং স্বয়ংক্রিয় নজরদারি প্রযুক্তি নিয়ে দুশ্চিন্তায় আছে পশ্চিমা ব্যবহারকারীরা

টিউন বিভাগ টেকটিউনস টেকবুম
প্রকাশিত
জোসস করেছেন

TikTok, ভিডিও শেয়ারিং অ্যাপ যা পশ্চিম বিশ্বের ৫০০ মিলিয়নেরও বেশি মানুষ ব্যবহার করছে। বিষয়টি TikTok এর চাইনিজ ভার্সন Douyin এর ক্ষেত্রেও এক। লাইভ স্ট্রিমিং অ্যাপ হিসাবে এটি সোশ্যাল মিডিয়ায় যেন নতুন মিলিয়নিয়ার।

ADs by Techtunes ADs

এই Douyin অ্যাপে চাইনিজ ইউজাররা স্বয়ংক্রিয় নজরদারি এবং সেন্সরশিপের শিকার হয়। এই অ্যাপে বিভিন্ন প্রযুক্তি ব্যবহার করে ইউজারদের নজরদারিতে রাখা হয়। একটি প্রযুক্তি ভিডিও স্ট্রিমকারীর ফেস স্ক্যান করে এবং তার বয়স আন্দাজ করে এবং ইউজারের বয়স ১৬ বছরের কম হলে তা একজন মডেরেটরকে প্রদান করে। আরেকটি স্ক্যানের মাধ্যমে তারা তাদের দেশের আইডি কার্ডের ফটোর সাথে মিলিয়ে দেখে। যদি কেউ হংকং বা অন্য দেশের হয় তাহলে তাকে ব্যান করে দেয়া হয়।

আরেকটি সিস্টেম স্ট্রিমারের এক্টিভিটি রেকর্ড করে। পাবলিক অর্ডার, সেইফ র‍্যাটিং, ক্রেডিট স্কোর ইত্যাদি একটি নির্দিষ্ট লেভেল থেকে কমে গেলে তার জন্য শাস্তিরও ব্যবস্থা করা হয়।

তাছাড়া Speech Recognition এবং টেক্সট ডিটেকশন এর মাধ্যমে তারা, বিভিন্ন সামন্তবাদ কুসংস্কার, নির্দিষ্ট দলের মানহানিকর বক্তব্য, এমনকি ASMR ব্যান করে যাতে এগুলো পর্নোগ্রাফি পর্যায়ে যেতে না পারে।

সম্প্রতি একজন ব্রিটিশ ব্যক্তি তার বেইজিং এপার্টমেন্ট থেকে চাইনিজ স্ত্রীর সাথে লাইভ স্ট্রিমিং করতে চায়। কিন্তু ফেসিয়াল রিকগনিশনে তার চেহারা ডিটেক্ট করা হলে সাথে সাথে ব্রডকাস্টিং টি ব্যান করা হয়। তাকে বলা হয় সরকারের অনুমতি ছাড়া ভিন্ন দেশি ব্যবহারকারীদের ব্যান করা হবে।

ব্রিটিশ ওই ব্যক্তি Joshua Dummer জানায়, "আমার স্ত্রী দিয়ে লাইভ স্ট্রিম করতে চায়, মাঝামাঝি সময় যখন আমাকে ক্যামেরায় আনা হয় এক মিনিটের মধ্যে একটি পপ-আপ শো করে এবং বলা হয়, অনুমতি ছাড়া বিদেশিরা লাইভ স্ট্রিমিং এ গ্রহণযোগ্য নয় "।

নিউইয়র্ক এর একজন সাংবাদিক Lzzy Niu এর করা একটি ডকুমেন্টে TikTok, এবং Douyin  এর  এই পদ্ধতি গুলো উঠে এসেছে৷ তিনি সেখানে বর্ণনা করেছেন কিভাবে চীনের ইন্টারনেট সেন্সরশিপের পরেও এর লাইভ স্ট্রিমিং গুলো দ্রুত গতিতে বেড়ে চলেছে।

Lzzy Niu তার করা নথিতে প্রশ্ন তুলেছেন TikTok, এবং Douyin এর মুল কোম্পানি ByteDance, পশ্চিমা দেশ গুলোতে কি এই ধরনের প্রযুক্তি ব্যবহার করছে কিনা। যেখানে ইতিমধ্যে ভারতে TikTok নিষিদ্ধ করা হয়েছে এবং US, UK এর মত দেশে গোপনে এটি নিয়ে পরীক্ষা নিরীক্ষা করা হচ্ছে। কিন্তু TikTok এ ব্যাপারে কোন জবাব দেয় নি।

ADs by Techtunes ADs

ব্রিটিশ ওই ব্যক্তি Joshua Dummer তার সাথে ঘটে যাওয়া ঘটনাতে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন এবং হংকং এর ইউজারদের সাথেও এমন ঘটনা ঘটেছে বলে জানা যায়।

গত বৃহস্পতিবার ByteDance এর একজন মুখপাত্র অনলাইন মিডিয়ায় Dummer এর সাথে ঘটে যাওয়া ঘটনাটি স্বীকার করছেন এবং বলেন, "যেহেতু Douyin এর সকল লাইভ স্ট্রিমিং মানুষ দ্বারা মডারেট করা হয় সুতরাং আমরা নিশ্চিত করছি তার সাথে ঘটে যাওয়া ঘটনাটির পেছনে মানুষেরই হাত ছিল।

অন্যদিকে আরেকটি নিউজ মিডিয়ায় জানায় ByteDance, বলেছে অটোমেটেড কোন প্রযুক্তি আগে থেকেই মডারেটরকে এই ধরনের নির্দেশ দিয়েছিল।

Niu এর বিশদ সেই ডকুমেন্টটি ২০১৯ সালে প্রকাশিত হলেও ইংরেজি সংবাদ মাধ্যম গুলো আগে এটি নিয়ে কথা বলে নি। তার এই রিপোর্টে উঠে এসেছে চীনের বিশাল এবং বর্ধিত লাইভ স্ট্রিমিং নিয়ে ByteDance, এর প্রতিক্রিয়া।

তবে কিছু কিছু ক্ষেত্রে Bytedance এর পলিসি পশ্চিমা সোশ্যাল মিডিয়া ফেসবুক এবং ইউটিউব এর মতই। কিছু কিছু সেন্সরশিপে তারা একই সরল রেখায় অবস্থান করে বলে জানা গিয়েছে। যেমন, পর্নোগ্রাফি, অশ্লীলতা, পাইরেসি ইত্যাদি ক্ষেত্রে ফেসবুক এবং ইউটিউব ও একই ধরনের সেন্সরশিপ ফলো করে।

ByteDance আরও কিছু বিষয়ের উপর নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে। যেমন সরকার নিয়ে কোন মানহানিকর বক্তব্যের লাইভ বন্ধ করা হবে, সামন্তবাদ কুসংস্কার নিয়ে কোন লাইভ করা যাবে না, ধূমপান এবং মদ্যপান নিয়ে কোন পার্টির লাইভ ব্রডকাস্ট করা যাবে না, নারীদের অপমানজনক কোন বক্তব্যের লাইভও গ্রহণযোগ্য না। এখানে অবাক করার মত বিষয় হচ্ছে তারা ASMR ভিডিও এর উপরও নিষেধাজ্ঞা জারি করেছে কারণ তাদের দাবী এটি পর্নোগ্রাফিকে উৎসাহিত করে। সবচেয়ে মজার বিষয় হচ্ছে তারা নারীদের বিভিন্ন ড্রেস কোডের উপরও বিভিন্ন রুল জারি করেছে।

ByteDance একটি প্রতিবেদনে জানান তারা তাদের নিয়ম নিয়ম গুলোতে ভাল ফলাফল পাচ্ছেন এবং ২০১৮ থেকে ২০১৯ সালে তাদের স্ট্রিমিং ভায়োলেন্স ৯৩% থেকে ৫৮% নেমে এসেছে।

আর এই সকল তথ্যের মধ্যে একটি বিষয়ই উঠে আসে সেটি হচ্ছে ব্যবহারকারীর ব্যক্তিগত ডেটা। যে অ্যাপটি এত প্রযুক্তি দিয়ে রেখেছে সেটা ইউজারদের জন্য নিরাপদ তো? আর চীনের কথা বাদ দিলেও TikTok সারা পশ্চিমা দেশ গুলো বাদেও আরও অনেক দেশ গুলোতে জনপ্রিয়। সুতরাং এর কি কোন নেতিবাচক প্রভাব থাকবে না? যেহেতু TikTok, এবং Douyin উভয়ই চীনে তৈরি এবং মুল ফিচার গুলো এক সুতরাং অন্য নেটওয়ার্কে রান হলেই কি TikTok সম্পূর্ণভাবে আলাদা?

শিশুদের প্রাইভেসি লঙ্ঘনের অভিযোগে যুক্তরাষ্ট্রে ইতিমধ্যে TikTik কে তদন্ত করা হচ্ছে। অভিযোগ করা হয়েছিল তারা ইউজারদের অজান্তেই ফেস ডাটা কালেক্ট করেছিল।

ADs by Techtunes ADs

Douyin এর সেন্সরশিপ এবং মনিটরিং প্রযুক্তি কতটা TikTok এ ব্যবহৃত হচ্ছে? TikTok এর কি ফেস ডিটেকশন প্রযুক্তি আছে কিনা? ইউজারদের ব্যক্তিগত ডেটা গুলো নিরাপদ কিনা? এই সকল বিষয় নিয়ে পশ্চিমা ইউজারদের উদ্বেগ এর কারণ হয়ে দাঁড়িয়েছে TikTok

-
টেকটিউনস টেকবুম - ১৮ জুলাই ২০২০

ADs by Techtunes ADs
Level 2

আমি টেকটিউনস টেকবুম। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 7 বছর 1 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 103 টি টিউন ও 0 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 0 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস