প্রত্যেক ইউটিউবারের পছন্দ এই ৩টি অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপস

টিউন বিভাগ অ্যান্ড্রয়েড Apps
প্রকাশিত
জোসস করেছেন

আজকাল বাংলাদেশেও ইউটিউবিং অন্যতম পেশাগুলোর মধ্যে একটি হয়ে দাঁড়িয়েছে। এখন বাংলাদেশেও ইউটিউবারের সংখ্যা অনেক এবং প্রতিনিয়ত তা বেড়েই চলেছে। আমাদের দেশের অনেক ইউটিউবার'দেরই প্রথম থেকে পিসি ব্যবহার করার সামর্থ্য না থাকায় তারা ইউটিউবিং-এর জন্য অ্যান্ড্রয়েড ফোনই ব্যবহার করে থাকেন। আমাদের দেশের সেইসব অসামর্থ্য ইউটিউবার'দের সুবিধার্থে, আমি বিভিন্ন সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অভিজ্ঞ ইউটিউবার'দের নিয়ে একটা জরিপ করেছিলাম যেখানে অভিজ্ঞ ইউটিউবার'রা ভোট করে বেছে নিয়েছেন ইউটিউবিং-এর জন্য সেরা অ্যান্ড্রয়েড অ্যাপসগুলো'কে। আশা করছি এই অ্যাপসগুলো প্রত্যেক ইউটিউবারের ইউটিউবিং-এর যাত্রাপথ আরও সহজ এবং আনন্দময় করে তুলবে।

Mobizen - সেরা স্ক্রিন রেকর্ডার অ্যাপ

আমার করা জরিপ'টিতে অংশগ্রহণকারী অভিজ্ঞ ইউটিউবার'দের মধ্যে সর্বোচ্চ ইউটিউবার'রাই ভোট করেছেন Mobizen স্ক্রিন রেকর্ডার'কে এবং এই অ্যাপ'টিকেই বেছে নিয়েছেন ইউটিউবিং-এর জন্য সেরা স্ক্রিন রেকর্ডার অ্যাপ হিসেবে। এই অ্যাপ'টি সকল স্ক্রিন রেকর্ডিং অ্যাপস থেকে বেশি সুযোগ-সুবিধা প্রদান করে থাকে, যা ইউটিউবার'দের সর্বোত্তম উপযোগী একটি অ্যাপ-এ থাকা প্রয়োজন। এই অ্যাপ'টির মাধ্যমে সর্বোচ্চ 1080P কোয়ালিটি পর্যন্ত স্ক্রিন ভিডিও রেকর্ড করতে পারবেন, তাও আবার আপনার অ্যান্ড্রয়েড ফোনকে রুট না করেই। তাই আমার মতেও ইউটিউবার'দের জন্য এই অ্যাপ'টি সেরা স্ক্রিন রেকর্ডিং অ্যাপ। গুগল প্লে স্টোর থেকে Mobizen অ্যাপ'টি ডাউনলোড করুন।

KineMaster Lite - সেরা ভিডিও এডিটর অ্যাপ

আমার করা জরিপ'টিতে অংশগ্রহণকারী অভিজ্ঞ ইউটিউবার'দের মধ্যে সর্বোচ্চ ইউটিউবার'রাই ভোট করেছেন KineMaster Lite ভিডিও এডিটর'কে এবং এই অ্যাপ'টিকেই বেছে নিয়েছেন ইউটিউবিং-এর জন্য সেরা ভিডিও এডিটর অ্যাপ হিসেবে। এই অ্যাপ'টি ইউটিউবার'দের জন্য উৎকৃষ্ট একটি অ্যাপ, কারণ এই অ্যাপ'টি ভিডিও এডিটিং-কে আরও সহজতর স্তরে নিয়ে গেছে। এই অ্যাপ'টি ব্যবহারের মাধ্যমে যে কেউ অনেক সহজেই ভিডিও এডিট করতে পারবেন এবং এই অ্যাপ'টি কয়েকদিন ব্যবহারের মাধ্যমে যে কেউ এই অ্যাপ'টি ব্যবহারে এক্সপার্ট হয়ে উঠতে পারবেন। তাই আমার মতে প্রত্যেক ইউটিউবার'দের ভিডিও এডিটিং-এর জন্য এই অ্যাপ'টিই ব্যবহার করা উচিত। মিডিয়াফায়ার থেকে KineMaster Lite অ্যাপ'টি ডাউনলোড করুন।

PixelLab - সেরা ফটো এডিটর অ্যাপ

আমার করা জরিপ'টিতে অংশগ্রহণকারী অভিজ্ঞ ইউটিউবার'দের মধ্যে সর্বোচ্চ ইউটিউবার'রাই ভোট করেছেন PixelLab ফটো এডিটর'কে এবং এই অ্যাপ'টিকেই বেছে নিয়েছেন ইউটিউবিং-এর জন্য সেরা ফটো এডিটর অ্যাপ হিসেবে। এই অ্যাপ'টি ব্যবহার করা অনেক সহজ এবং অনেক সহজেই এই অ্যাপ'টির মাধ্যমে যে কেউ উন্নত মানের ভিডিও থাম্বনেইলও তৈরি করতে পারবেন, তাছাড়াও এই অ্যাপ'টি অন্যান্য কোনোরকম লোগো কিংবা ব্যানার তৈরিতেও ব্যবহার করতে পারবেন। আমার মতে প্রত্যেক ইউটিউবার'দের এই অ্যাপ'টি ব্যবহার করা উচিৎ। গুগল প্লে স্টোর থেকে PixelLab অ্যাপ'টি ডাউনলোড করুন।
টিউন'টি পড়ার জন্য ধন্যবাদ। আশা করছি এই অ্যাপগুলো আপনার ইউটিউবিং-এর যাত্রাপথ'কে আরও সহজ এবং আনন্দময় করে তুলবে আর আপনি আপনার ইউটিউব চ্যানেল'টিকে একটি উন্নত পর্যায়ে নিয়ে যেতে সক্ষম হবেন।

Level 0

আমি প্রকাশ সিংহ। বিশ্বের সর্ববৃহৎ বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির সৌশল নেটওয়ার্ক - টেকটিউনস এ আমি 3 বছর 3 মাস যাবৎ যুক্ত আছি। টেকটিউনস আমি এ পর্যন্ত 11 টি টিউন ও 1 টি টিউমেন্ট করেছি। টেকটিউনসে আমার 3 ফলোয়ার আছে এবং আমি টেকটিউনসে 0 টিউনারকে ফলো করি।

একজন ইন্টারনেট উদ্যোক্তা, সফটওয়্যার ডেভেলপার, ওয়েব ডেভেলপার, কম্পিউটার প্রোগ্রামার, গ্রাফিক্স ডিজাইনার, সাইবার এক্সপার্ট এবং ব্লগার।


টিউনস


আরও টিউনস


টিউনারের আরও টিউনস


টিউমেন্টস